অজি ক্রিকেটারদের অ্যাশেজ বর্জনের হুমকি

মে ১৬ ২০১৭, ১৪:১৮

বেশ কিছুদিন ধরেই ক্রিকেটর অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) কর্মকর্তাদের সঙ্গে দেশটির ক্রিকেটারদের দ্বন্দ্ব চলছে। ধীরে ধীরে যা বড় আকারই ধারণ করেছে। এই দ্বন্দ্বের পেছনে মূল কারণ হলো সিএ প্রস্তাবিত নতুন বেতন কাঠামো। যা নিয়ে অসন্তুষ্ট দেশটির ক্রিকেটারদের অ্যাসোসিয়েশন।

এ বিষয়ে বোর্ডের প্রধান নির্বাহী জেমস সাদারল্যান্ড ক্রিকেটারদের কাছে পাঠানো চিঠিতে হুমকি দিয়েছেন, চুক্তিতে সই না করলে বর্তমান চুক্তি শেষ হওয়ার পর বেতন দেওয়া হবে না ক্রিকেটারদের। পাল্টা হুমকি দিয়েছেন ক্রিকেটাররাও, প্রয়োজনে অ্যাশেজ বর্জনের মতো কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে পারেন তারা।

এ ব্যাপারে দেশটির অন্যতম ক্রিকেট তারকা ডেভিড ওয়ার্নার জানিয়েছেন, তাদের চাওয়ামতো চুক্তি না হলে আসছে অ্যাশেজ বর্জন করতে পারেন তারা।

ক্রিকেটারদের প্রতিনিধি হিসেবে ওয়ার্নার বলেন, ‘ব্যাপারটি যদি চূড়ান্ত সীমায় যায়, বোর্ড অ্যাশেজে খেলার

জন্য কোনো খেলোয়াড়কে পাবে না। তাই আমরা আশা করি, তারা একটি সমঝোতায় আসবে। আমরা এমন কিছু দেখতে চাই না। ক্রিকেটার্স অ্যাসোসিয়েশনের সঙ্গে বোঝাপড়ার দায়িত্ব বোর্ডের। সবকিছুই তাদের হাতে।’

অস্ট্রেলিয়ায় না খেললে ভবিষ্যতে কোথায় খেলবেন তাও ঠিক করে ফেলেছেন ওয়ার্নাররা। এ ব্যাপারে তিনি বলেন, ‘কোথাও ক্রিকেট খেলার পথ খুঁজে বের করতে হবে আমাদের। ক্যারিবীয় ক্রিকেট লিগ এবং ইংল্যান্ডে টি২০ আসরে খেলতে পারি আমরা।’

ক্রিকেটারদের সঙ্গে বোর্ডের দ্বন্দ্ব শুরু হয় বেতন-ভাতা নিয়ে। অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটাররা বেতনের বাইরেও বোর্ডের রাজস্বের একটা অংশ পেয়ে থাকেন। গত প্রায় ২০ বছর ধরেই চলে আসছে এই ধারা। নতুন প্রস্তাবিত চুক্তিতে সেটিতে বদল আনা হয়েছে। শুধু আন্তর্জাতিক ক্রিকেটাররাই বাড়তি রাজস্বের ভাগ পাবে। এর পর থেকেই শুরু হয় দ্বন্দ্ব।

 

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>