অর্থপাচার হয়, তবে তা যৎসামান্য : অর্থমন্ত্রী

জুলাই ১২ ২০১৭, ১০:৫৬

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত সংসদে ৩০০ বিধিতে দেয়া এক বিবৃতিতে বলেছেন, বাংলাদেশ থেকে অর্থপাচার হয়, তবে তা যৎসামান্য। সুইস ব্যাংকে বাংলাদেশিদের হিসাবে জমাকৃত অর্থের পরিমাণ নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে যেসব তথ্য প্রকাশিত হয়েছে তা অতিশয়োক্তি বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বি মিয়ার সভাপতিত্বে সংসদের ১৬তম অধিবেশনে মঙ্গলবারের বৈঠকে অর্থ পাচার প্রসঙ্গে ৩০০ বিধিতে দেওয়া বিবৃতিতে তিনি এসব কথা বলেন।

অর্থমন্ত্রী বলেন, বিদেশে অর্থ যে পাচার হয় না, সে কথা আমি বলব না। কিন্তু এইসব সংবাদ মাধ্যমে যে পরিমাণ অর্থ

প্রচার হয়েছে বলা হয়েছে সেটা বাস্তবেই অতিশয় উক্তি বলে বিবেচনা করা চলে। বিষয়টির গুরুত্ব অনুধাবন করে বাংলাদেশ ব্যাংক এবং বাংলাদেশ ফাইন্যালন্সিয়াল ইন্টিলেজেন্ট ইউনিট অতিরিক্ত তথ্য সংগ্রহ করেছে এবং তা বিশ্লেষণ করে একটি প্রতিবেদন অর্থমন্ত্রণালয়ে জমা দিয়েছেন।

তিনি বলেন, টাকা পাচারের বিষয়টি বাস্তবে তেমন কিছু নয়। যে হিসাবগুলো কাগজে বেরিয়েছে এগুলো হল লেনদেন এবং সম্পদের হিসাব। আমাদের সাংবাদিকরা এটিকে অত্যন্ত অন্যায়ভাবে পাচার বলে দিয়েছেন। এসময় মন্ত্রী বলেন, সত্যিই কিছু পাচার হয়, কিন্তু এটি অতি যৎ সামান্য। এটা নজর নেয়ার মতই নয়।

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>