আরও শক্তিশালী হয়ে ফিরবে বাংলাদেশ: মাশরাফি

হলো না। স্বপ্নের তরীর ভেড়া হলো না আর তীরে। সেমিফাইনালের চৌকাঠেই আটকে গেল বাংলাদেশ। তাতে হয়তো একটা টুর্নামেন্টের পথচলা শেষ হলো, তবে ভারতের বিপক্ষে চ্যাম্পিয়নস ট্রফির শেষ চারের লড়াইয়ে অর্জনের খাতায় অনেক কিছুই যোগ হয়েছে টাইগারদের। সাফল্যের এই সিঁড়ি বেয়েই এখন উঁচু থেকে আরও উঁচুতে যাওয়ার স্বপ্ন দেখছেন অধিনায়ক মাশরাফি ‍বিন মুর্তজা। আইসিসির টুর্নামেন্টের সেমিফাইনাল পর্যন্ত যাওয়ার আত্মবিশ্বাস বুকে ধরে তাই আরও শক্তিশালী হয়ে ফেরার কথা জানিয়েছেন ম্যাচ শেষে দেওয়া প্রতিক্রিয়ায়।

বাংলাদেশ যে সেমিফাইনাল পর্যন্ত যাবে, এই বাজি ধরার লোকের সংখ্যা খুব বেশি ছিল না। ইংল্যান্ড, অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ডের মতো দলের সঙ্গে থাকায় তাদের গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায়ের ভবিষ্যদ্বাণীই করেছিলেন ক্রিকেট বিশ্লেষকদের অনেকে। কিন্তু ‘বড়’ হয়ে ওঠা বাংলাদেশ তা মানলে তো! ‘আশীর্বাদ’ হয়ে আসা বৃষ্টি, আর নিউজিল্যান্ডকে অবিশ্বাস্যভাবে হারিয়ে অস্ট্রেলিয়াকে বিদায় করে আইসিসির কোনও টুর্নামেন্টে প্রথমবার সেমিফাইনাল নিশ্চিত করে তারা। নিজেদের ইতিহাসের সবচেয়ে বড় এই অর্জনের পথ ধরে এখন শুধুই সামনে এগোনোর শপথ অধিনায়ক মাশরাফির কণ্ঠে। তাই হারের পরও বলে গেলেন, ‘পরের বার আমরা আরও শক্তিশালী হয়ে ফিরব।’

টস হেরে ব্যাটিংয়ে নামার

পর দ্রুত ২ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়লেও বাংলাদেশ ঘুরে দাঁড়ায় তামিম ইকবাল-মুশফিকুর রহিমের ব্যাটে। তাদের ১২৩ রানের জুটিতে যখন বড় সংগ্রহের স্বপ্ন দেখছে বাংলাদেশ, ঠিক তখনই আবার ধাক্কা। দ্রুত এই দুই সেট ব্যাটসম্যানকে হারিয়ে উল্টো চাপে পড়ে বাংলাদেশ। কেদার জাদবের বলে মাত্র ২ রানের মধ্যে তামিম-মুশফিকের আউট না হলে রানটা আরও বাড়তেই পারতো তাদের। সেই আক্ষেপও ঝরল অধিনায়ক মাশরাফির কণ্ঠে, ‘যেভাবে ব্যাটিং হচ্ছিল তাতে আমরা ৩০০, এমনকি ৩২০ রানও হয়তো করতে পারতাম। কিন্তু দ্রুত দুই সেট ব্যাটসম্যান আউট হয়ে যাওয়ায় ব্যাকফুটে চলে যাই আমরা।’

যে কোনও হারই কষ্টদায়ক। যদিও ভারতের বিপক্ষে হারের পরও ইতিবাচক অনেক কিছু খুঁজে পেয়েছেন মাশরাফি। বিশেষ করে খেলোয়াড়দের দক্ষতায় ভীষণ সন্তুষ্ট বাংলাদেশ অধিনায়ক। একই সঙ্গে উন্নতির জায়গাও দেখছেন তিনি। কোথায়, শুনুন মাশরাফির মুখেই, ‘দক্ষতার প্রসঙ্গে আমি বলব সবকিছু ঠিক আছে, তবে আমাদের মানসিকতার জায়গায় আরও শক্তিশালী হতে হবে।’ তাই সেমিফাইনাল নিয়ে তার বক্তব্য, ‘ভালো ক্রিকেট খেলেই আমরা এখানে এসেছি। ধারাটা সচল রাখলে আবারও এই জায়গায় আসা সম্ভব।’

সেই আশাতেই থাকবে গোটা বাংলাদেশ। সেমিফাইনালে পৌঁছানো বাংলাদেশ একদিন মাতবে শিরোপা জয়ের উল্লাসে!

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>