ইউপি নির্বাচন: বরগুনায় সংঘর্ষ, ভোলায় শান্তিপূর্ণ ভোট

এপ্রিল ১৬ ২০১৭, ১৩:২০

বরগুনার তালতলী উপজেলার পঁচাকোড়ালিয়া ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে ভোটগ্রহণের সময় একটি কেন্দ্রে সংঘর্ষে আহত হয়েছেন ছয়জন।

আজ রোববার দুপুরে ওই ইউনিয়নের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোট কেন্দ্রে দুই ইউপি সদস্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে এই সংঘর্ষ হয়।

আহতরা হলেন, সোবাহান মৃধা (৫৫), রেজাউল (১৮), ছগির (৩০), মাহবুব (৩২), নাসির (২২) ও মিলন (২৭)। তাদের তালতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

পঁচাকোড়ালিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রিজাইডিং অফিসার সুমিত্র কুমার বৈরাগী জানান, এক নারীর ভোট দেয়া না দেয়াকে কেন্দ্র করে পঁচাকোড়ালিয়া ইউনিয়নের পাঁচ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য (মেম্বর) পদ প্রার্থী মো. মহসিন পাটোয়ারী এবং মো. জাফর মৃধার সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে উভয়পক্ষের ওই ছয়জন আহত হন। খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

এদিকে, তালতলীর অন্য পাঁচটি ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে ভোটগ্রহণ চলছে।রোবাবর সকাল ৮টায় উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট দিতে শুরু করেন ভোটাররা। বিকেল ৪টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ চলবে।

নির্বাচনকে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ করতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পর্যাপ্ত সংখ্যক সদস্য মোতায়েন রয়েছে নির্বাচনী এলাকায়।  তালতলী উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়নে ৪৫টি ভোট কেন্দ্রে ভোট চলছে। এ পাঁচ ইউপিতে মোট ভোটার সংখ্যা ৫২ হাজার ৪৭৪ জন। এদের মধ্যে পুরুষ ২৬ হাজার ২৪ জন এবং নারী ২৬ হাজার ৪৫০ জন।

ভোলার দৌলতখান ও মনপুরা: উপজেলার তিনটি ইউনিয়ন

পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে ভোট গ্রহণ চলছে। দুই উপজেলার তিনটি ইউনিয়ন হলো, দৌলতখানের সৈয়দপুর, হাজিপুর এবং মনপুরা ইউনিয়ন।

আজ রবিবার সকাল ৮টা থেকে ভোট শুরু হয়েছে, চলবে বিকেল ৪টা পর্যন্ত।

হাজিপুর ইউনিয়নে বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় চেয়ারম্যান হিসেবে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হতে যাচ্ছেন আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী হামিদুর রহমান টিপু। অন্যদিকে সাধারণ সদস্য পদেও নির্বাচন হবে মাত্র দুটি ওয়ার্ডে।

একই উপজেলার সৈয়দপুর ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে দুই জন এবং মনপুরা উপজেলার মনপুরা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে চারজন প্রতিদ্বন্দিতা করছেন। দুই ইউনিয়নে সদস্য পদে প্রার্থী অর্ধশতাধিক।

উপজেলা রির্টারিং অফিস থেকে জানা গেছে, মনপুরা ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে লড়ছেন চারজন। এছড়া পুরুষ সদস্য পদে ৩২ এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে নয়জন প্রার্থী লড়ছেন। এ ইউনিয়নে মোট ভোটার সংখ্যা ১১ হাজার ৩৬০। এদের মধ্যে পুরুষ ভোটার সংখ্যা পাঁচ হাজার ৭১১ জন এবং নারী ভোটার পাঁচ হাজার ৫৪৯ জন।

এদিকে, সব ধরনের অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে ছয় স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা করা হয়েছে। ভোলার পুলিশ সুপার মোঃ মোকতার হোসেন বলেন, সুষ্ঠু পরিবেশে নির্বাচন সম্পন্ন করার লক্ষ্যে পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে সব ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

যে কোনো ধরনের পরিস্থিতি মোকাবেলায় পুলিশ প্রশাসনের পর্যাপ্ত ফোর্স মোতায়েন করা হয়েছে। এছাড়া র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‌্যাব) ও কোস্টগার্ডসহ অন্য বাহিনীর সদস্যরাও নিরাপত্তার দায়িত্বে রয়েছেন।

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>