উদ্দেশ্যমূলক অপপ্রচারে ক্ষুব্ধ পবিপ্রবি প্রশাসন, তদন্ত কমিটি গঠন

আগস্ট ০৩ ২০১৭, ১৭:৪২

পবিপ্রবি প্রতিনিধি: উদ্দেশ্যমূলকভাবে পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (পবিপ্রবি) বিরুদ্ধে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের বিভিন্ন পেইজে অপপ্রচার চালানো হচ্ছে অভিযোগ করে এর প্রতিবাদ করেছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ও বর্তমান একদল শিক্ষার্থী। এই অপপ্রচারের ঘটনায় পবিপ্রবির পক্ষ থেকে লিখিত বিবৃতিতে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া জানানো হয়েছে। ঘটনা তদন্তে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে একটি তদন্ত গঠন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার পবিপ্রবির রেজিস্ট্রার প্রফেসর ড. স্বদেশ চন্দ্র সামন্ত স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানা গেছে, বিশ্ববিদ্যালয়ের বায়োকেমিস্ট্রি অ্যান্ড ফুড এনালাইসিস বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. নিতাই চন্দ্র রায় গত বুধবার নিউট্রিশন অ্যান্ড ফুড সায়েন্স অনুষদ ভবনের ব্যবহারিক ক্লাসরুমে ছাত্রছাত্রীদের ফ্লোরে বসিয়ে অনির্ধারিত একটি তত্ত্বীয় ক্লাস নিয়েছেন।

অনুষদে পর্যাপ্ত তত্ত্বীয় ক্লাসরুম (বসার চেয়ারসহ) থাকা সত্ত্বেও তিনি নিজ দায়িত্বে ওই ক্লাস নিয়েছেন। শিক্ষক হিসেবে এ ধরনের কাজ একজন শিক্ষকের দায়িত্বহীনতার পরিচয়। বর্তমানে এ বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্লাসরুম ও চেয়ারের কোন সংকট নেই। ওই শিক্ষকের এই কর্মকান্ডে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ক্ষুব্ধ। বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য একটি তদন্ত কমিটি গঠিত হয়েছে।
এ ব্যাপারে ড. নিতাই চন্দ্র রায় বলেন, একটি ব্যবহারিক ক্লাসরুমে অতিউৎসাহী কিছু শিক্ষার্থী আগে থেকেই ফ্লোরে বসে আমাকে ক্লাস নেয়ার অনুরোধ করে। প্রথমে আমি ক্লাস নিতে না চাইলেও পরবর্তীতে শিক্ষার্থীদের অনুরোধে ক্লাসরুমে প্রবেশ করলে পূর্ব-পরিকল্পিতভাবে কয়েকজন শিক্ষার্থী আমার অনুমতি না নিয়ে ক্লাসরুমের ছবি তোলে। যা পরবর্তীতে ফেসবুকে ছড়িয়ে দেয়া হয়।

Facebook Comments