খরচ বাড়ছে ব্যাংক লেনদেনে

জুন ০২ ২০১৭, ১১:৫০

আগামী জুলাই থেকে ব্যাংকে টাকা জমা রাখলে সরকার দেড়গুণ কর কাটবে। ব্যাংক থেকে নিজের টাকা তুললেও দেড়গুণ কর দিতে হবে। আবার ব্যাংক থেকে কেউ ঋণ নিতে গেলেও ঋণের সে অর্থ থেকে দেড়গুণ কর দিয়ে আসতে হবে সরকারকে।

‘আবগারি শুল্ক’ নামে এসব অর্থ কাটা হবে ব্যাংকে টাকা জমা দেয়া ও তোলার সময়।

এছাড়া সঞ্চয়পত্রের সুদহারও কমানো হচ্ছে।

আগামী (২০১৭-১৮) অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেটে এসব তথ্য উঠে এসেছে।

সূত্র জানায়, চলতি অর্থবছরের বাজেটে ২০ হাজার টাকা পর্যন্ত লেনদেন আবগারি শুল্কমুক্ত রাখা আছে। প্রস্তাব অনুযায়ী আগামী অর্থবছরেও তা বহাল থাকছে। অর্থাৎ ২০ হাজার টাকা পর্যন্ত লেনদেন করলে কোনো কর দিতে হবে না।

২০ হাজার এক টাকা থেকে এক লাখ টাকা পর্যন্ত জমা ও ঋণের ওপর চলতি বাজেটে ১৫০ টাকা আবগারি শুল্ক নিচ্ছে এনবিআর। তবে ২০১৭-১৮ অর্থবছরের নুতন বাজেটে তা বাড়িয়ে ২০০ টাকা

করা হচ্ছে।

এক লাখ এক টাকা থেকে ১০ লাখ টাকা পর্যন্ত জমা ও ঋণের ওপর চলতি বাজেটে আবগারি শুল্ক ধরা আছে ৫০০ টাকা। আগামী অর্থবছরে তা বাড়িয়ে ৮০০ টাকা করা হচ্ছে। বাড়ানো হয়েছে প্রায় দেড়গুণ।

১০ লাখ এক টাকা থেকে এক কোটি টাকা পর্যন্ত লেনদেনের ওপর চলতি অর্থবছরে ১ হাজার ৫০০ টাকা নিচ্ছে সরকার। আগামী ১ জুলাই থেকে ২ হাজার ৫০০ টাকা নেয়া হবে।

সূত্র জানায়, এক কোটি এক টাকা থেকে পাঁচ কোটি টাকা পর্যন্ত লেনদেনে চলতি অর্থবছরে সাত হাজার ৫০০ টাকা আবগারি শুল্ক আদায় করা হচ্ছে। আগামী অর্থবছরে তা বাড়িয়ে ১২ হাজার টাকা আরোপ করা হচ্ছে।

একইভাবে পাঁচ কোটি এক টাকা থেকে আরও বেশি পরিমাণ অর্থ লেনদেনের ওপর বর্তমান আবগারি শুল্ক ১৫ হাজার টাকা থেকে বাড়িয়ে আগামী অর্থবছরে ২৫ হাজার টাকা নির্ধারণ করার প্রস্তাব চূড়ান্ত করা হয়েছে।

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>