জোয়ারে ভাসছে ভোলার উপকূল

এপ্রিল ২৩ ২০১৭, ১৫:২১

টানা বৃষ্টির সঙ্গে ভোলার মনপুরা উপকূলে হানা দিয়েছে জোয়ারের পানি। এতে উপজেলার কয়েকটি ইউনিয়ন পানিতে ভাসছে।

শনিবার তিন কিলোমিটার বেড়ীবাঁধ দিয়ে জোয়ারের পানি ঢুকে ফসলসহ মাছ ও কাঁকড়ার ঘের প্লাবিত হয়। এতে কোটি টাকার ক্ষতি। কৃষকের পাশাপাশি মাছ চাষীরা দিশেহারা হয়ে পড়েছে।

মনপুরা ইউনিয়ন পরিষদের সদ্য নির্বাচিত চেয়ারম্যান আমানত উল্যাহ আলমগীর যুগান্তরকে জানান, বৃষ্টি ও জোয়ারের পানিতে পুরো ইউনিয়ন প্লাবিত হয়েছে। শতাধিক ঘেরের মাছ ও কাঁকড়া পানিতে ভেসে গেছে।

মৎস্য ও কেকঁড়া চাষীরা জানান, টানা বৃষ্টির পানিতে কোনমতে ঘেরের মাছ ও কাঁকড়া রক্ষা করতে পারলেও শনিবার জোয়ারের পানিতে সব ভেসে গেছে। এতে প্রায় কোটি ক্ষতি

হয়েছে।

এদিকে জেলা আবহাওয়া অফিসূত্রে জানা যায়, গত কয়েকদিনে ৩৬ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে।

পানি উন্নয়ন বোর্ড সূত্রে জানা যায়, মেঘনার পানি বিপদসীমার ৩০ সেন্টিমিটার উপর প্রবাহিত হচ্ছে।

সরেজমিনে ঘুরে দেখা গেছে, উপজেলার মনপুরা ইউনিয়নের পূর্ব ও পশ্চিম পাশে তিন কিলোমিটার বেড়ীবাঁধ না থাকায় জোয়ারের পানি ঢুকে পুরো ইউনিয়ন প্লাবিত হয়েছে। এছাড়াও হাজিরহাট ইউনিয়নের সোনারচর, দাসেরহাট গ্রামে বেড়ীবাঁধ না থাকায় প্লাবিত হয়।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) ডিভিশন-২ এর নির্বাহী প্রকৌশলী কাউসার হোসেন জানান, মনপুরা উপজেলার মনপুরা ইউনিয়নের তিন কিলোমিটার বেড়ীবাঁধের পুনঃনির্মাণের জন্য এক কোটি ৬০ লাখ টাকা বরাদ্দ হয়েছে। বেড়ীবাঁধ নির্মাণ হলে জোয়ারের পানি থেকে রক্ষা পাবে উপকূলবাসী।

 

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>