ঝালকাঠিতে লঞ্চে ডাকাতির ঘটনায় ডাকাত গ্রেপ্তার

ঝালকাঠির নলছিটি উপজেলার ইসলামপুর এলাকায় বিষখালী নদীতে পুলিশ পরিচয়ে চলন্ত যাত্রীবাহী লঞ্চ থামিয়ে ডাকাতির ঘটনায় কিবরিয়া খান ওরফে সমির নামের এক ডাকাতকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। গতকাল রবিবার রাতে বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার চামটা গ্রাম থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। সে বাকেরগঞ্জের পশ্চিম কৃষ্ণনগর গ্রামের মৃত সিদ্দিকুর রহমানের ছেলে।

গ্রেপ্তারকৃত সমির পুলিশের বরখাস্তকৃত সদস্য। তার বিরুদ্ধে ঢাকার তুরাগ থানায় দুটি ছিনতাই মামলা রয়েছে। পুলিশে চাকরিরত অবস্থায় ছিনতাইকালে হাতেনাতে ধরা পড়ায় তাকে বরখাস্ত করা হয়।

পুলিশ জানায়, ২০১৫ সালের ২৯ মে দুপুরে বাকেরগঞ্জ উপজেলার নেয়ামতি ঘাট থেকে একটি যাত্রীবাহী লঞ্চ ঝালকাঠির উদ্দেশে ছেড়ে

আসে। লঞ্চটি বিষখালী নদী দিয়ে যাওয়ার সময় বিকেলে নলছিটির ইসলামপুর এলাকায় পুলিশের পোশাক পরিহিত পাঁচজন ব্যক্তি চলন্ত লঞ্চে উঠে চালককে লঞ্চটি থামাতে বলে। লঞ্চটি থামিয়ে তারা ব্যবসায়ী বাদশা হাওলাদারকে আটক করে কাপড় দিয়ে চোখ ও হাত বেঁধে ফেলে। এ সময় বাদশার হাতে থাকা একটি ব্যাগে ১০ লাখ টাকা নিয়ে যায় পাঁচ ডাকাত। এ ঘটনায় ওই দিন রাতেই নলছিটি থানায় একটি ডাকাতি মামলা করেন ব্যবসায়ী বাদশা হাওলাদার।

নলছিটি থানার ওসি এ কে এম সুলতান মাহমুদ জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এসআই ফিরোজের নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে দক্ষিণাঞ্চলের দুর্ধর্ষ ডাকাত সর্দার সমিরকে গ্রেপ্তার করা হয়।

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>