নগরীতে সদরগার্লস স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা, পুলিশ বলছে রহস্যজনক

এপ্রিল ০৩ ২০১৭, ২৩:৪৮

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ নগরীর সরকারী বালিকা বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর প্রভাতী শাখার ছাত্রী ফাতেমাতুজ্জোহরা সেঁতু আত্মহত্যা করেছে। সোমবার (০৩ এপ্রিল ২০১৭) দুপুর ১টার দিকে নগরীর মল্লিক রোড ‘বলহার বিলাসে’ ভবনের এ ঘটনা ঘটে। সেঁতু সদর উপজেলার মহাবাজ এলাকার সেলিম রেজার মেয়ে। তারা কয়েক বছর ধরে বলহার বিলাসে ভাড়া থাকছেন।

সেঁতুর বাবা সেলিম রেজা জানান, তিনি যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর মেহিন্দেগঞ্জ অফিসে কর্মরত। প্রতিদিনের ন্যায় সকালে তিনি অফিসে যান। ঘরে তার স্ত্রী ও দু,ছেলে ছিলো। আর সেঁতু সকালেই স্কুলে যায়। দুপুর ১টার সময় স্কুল থেকে বাসায় ফেরে। সেঁতুকে বাসায় রেখে তার মা ও দু,ভাই বাইরে জরুরী কাজে যান। দুপুর ১টার দিকে বাসায় ফিরে অনেক ডাকাডাকির পরও কোন সাড়া না পেয়ে সন্দেহ হয়। এর পর দরজার জানালার ফাঁক দিয়ে

তাকিয়ে

 

দেখি ঘরের আড়ার সাথে গলায় ওড়না পেচিয়ে ঝুলে আছে সেঁতু।

দ্রুত তাকে শেরেবাংলা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত্যু ঘোষনা করেন। সেঁতুর স্বজনরা লাশ পোস্টমর্টেম ছাড়া নিয়ে যাওয়ার জন্য চেষ্টা করে। কিন্তু পুলিশ বলছে লাশের ময়না তদন্ত করা হবে। সেঁতুর মৃত্যু নিয়ে রহস্য আছে বলে দাবী করেছে পুলিশ।

সেঁতুর বাবা দাবী করেন, তার মেয়ের সাথে পরিবারের কারো সাথে কোন ঝগড়া হয়নি। এমনকি সেঁতু মোবাইলও ব্যবহার করতোনা। তাহলে কেন স্কুলছাত্রী সেঁতু আত্মহত্যা করেছে এ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

ঘটনাস্থল পরিদর্শনকারী কোতয়ালী থানার এসআই আব্দুল ওহাব বলেন, সরকারী বালিকা বিদ্যালয়ের ফুটফুটে একটি মেয়ে কেন আত্মহত্যা করলো এনিয়ে আমাদের সন্দেহ আছে। পরিবারের লোকজনও মৃত্যুর কোন কারন বলতে পারছেনা। বিষয়টি আমাদের কাছে রহস্যজনক মনে হওয়ায় লাশ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরন করা হয়েছে।

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>