বরিশালের সিএমএমকে নারায়ণগঞ্জে বদলির পরামর্শ সুপ্রিম কোর্টের জিএ কমিটির

আপডেট : August, 10, 2017, 11:15 pm

বরিশালের চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (সিএমএম) মোহাম্মদ আলী হোসাইনকে নারায়ণগঞ্জের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ হিসেবে বদলির জন্য আইন মন্ত্রণালয়কে পরামর্শ দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। নিয়মিত বদলির অংশ হিসাবে তাকে ওইখানে বদলির পরামর্শ দেয়া হয়েছে।
তবে জামালপুরে বদলির প্রস্তাব করে আইন মন্ত্রণালয় যে প্রস্তাব পাঠিয়েছিলো তা গ্রহণ করেনি প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার নেতৃত্বাধীন চার সদস্যের জেনারেল অ্যাডমিনিস্ট্রেশন কমিটি (জিএ)। একইসঙ্গে ওই কমিটি বরিশালের সিএমএম হিসেবে নরসিংদীর অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ মো. শাহীন উদ্দিনকে পদায়ন করতে আইন মন্ত্রণালয়কে পরামর্শ দেয়া হয়েছে।
গত ২৫ জুলাই সিএমএম আলী হোসাইনকে বরিশাল থেকে অন্যত্র বদলির প্রস্তাব করে সুপ্রিম কোর্টের পরামর্শ চায় আইন মন্ত্রণালয়। বুধবার জিএ কমিটির বৈঠকে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। প্রসঙ্গত বিচারকদের নিয়োগ, বদলি, পদোন্নতি এবং অনিয়ম ও দুর্নীতির বিষয়টি দেখভাল করে জিএ কমিটি। এই কমিটির প্রধান হলেন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র
কুমার সিনহা। কমিটির সদস্য হিসেবে রয়েছেন হাইকোর্টের তিনজন বিচারপতি।
স্বাধীনতা দিবসের আমন্ত্রণপত্রে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর ছবি বিকৃতির অভিযোগে ইউএনও তারিক সালমানের বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির ৫০১ ধারায় মানহানির মামলা করেন বরিশাল জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি ওবায়দুল্লাহ সাজু। ওই মামলা আমলে নিয়ে গত ৭ জুলাই অতিরিক্ত সিএমএম অমিত কুমার দে ইউএনওর বিরুদ্ধে সমন জারি করেন। সমন পেয়ে গত ১৯ জুলাই সিএমএমের আদালতে ওকালতনামা দাখিল করে জামিন চান ইউএনও।
কিন্তু বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয় যে ইউএনওর জামিন নামঞ্জুর এবং পরে জামিন মঞ্জুরের ঘটনা ঘটেছে। এ বিষয়ে সিএমএমের কাছে ব্যাখ্যা চায় সুপ্রিম কোর্ট। গত ২৩ জুলাই সুপ্রিম কোর্টে ব্যাখ্যা দিয়ে ওই বিচারক বলেন, আগৈলঝাড়া উপজেলার সাবেক ইউএনও গাজী তারিক সালমানকে জামিনই দেয়া হয়েছিলো। জামিন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণের কোন প্রশ্নই উঠে না। এরপর সিএমএমকে জামালপুরে বদলির প্রস্তাব দিয়ে সুপ্রিম কোর্টে চিঠি পাঠায় মন্ত্রণালয়।
Facebook Comments