বরিশালের সেই অতিরিক্ত পুলিশ সুপারকে অন্যত্র বদলী

শামীম আহমেদ, বরিশাল: “পুলিশ কর্মকর্তার সঙ্গে মাদক বিক্রেতার গভীর সখ্য-ফোনালাপের তথ্য ফাঁস” শিরোনামে গত ৪ জুন বিভিন্ন দৈনিক পত্রিকা ও অনলাইনে সংবাদ প্রকাশের পর প্রশাসন থেকে শুরু করে সর্বমহলে ব্যাপক তোলপাড় শুরু হয়। ওই রিপোর্টের জেরধরেই অবশেষে জেলার গৌরনদী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রেজাউল করিমকে অন্যত্র বদলী করা হয়েছে। তার বদলীয় খবর সোমবার ছড়িয়ে পরায় জনমনে স্বস্তি ফিরে এসেছে। নাম প্রকাশ না করার শর্তে নির্ভরযোগ্য একটি গোয়েন্দা সূত্রে জানা গেছে, প্রকাশিত সংবাদের সূত্রধরে সংশ্লিষ্ট উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নির্দেশে আইনপ্রয়োগকারী সংস্থার তিনটি দল অতিগোপনে তদন্ত করে প্রকাশিত সংবাদের সত্যতা পান। তদন্তকারী দলের রিপোর্টের ভিত্তিতে পুলিশ হেড কোয়ার্টার্সের অতিরিক্ত ডিআইজি পার্সোনেল ম্যানেজমেন্ট-১ হাবিবুর রহমানের গত ৮ জুলাই স্বাক্ষরিত এক আদেশে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রেজাউল

করিমকে বরিশাল ১০ম এপিবিএনে বদলি করা হয়।
সূত্রমতে, প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে গৌরনদী মডেল থানা পুলিশ মাদক বিক্রেতাদের বিরুদ্ধে কঠোর অভিযান শুরু করে দুইমাসে চার শতাধিক মাদক বিক্রেতাকে গ্রেফতার করেন। পুলিশের গ্রেফতার আতঙ্কে আত্মগোপনে থাকা এক প্রভাবশালী মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করতে গিয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রেজাউল করিমের রোষানলে পরে থানার এক দারোগা। তিনি (অতিরিক্ত পুলিশ সুপার) মোবাইল ফোনে রাসেল প্যাদা নামের ওই মাদক বিক্রেতাকে হয়রানী না করার জন্য থানার দারোগাকে শ্বাসিয়ে তা আবার মোবাইলের মাধ্যমে রাসেল প্যাদাকে শোনান। রাসেল তার ব্যবসা চাঙ্গা রাখতে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কর্তৃক দারোগাকে শ্বাসানো ও তার সাথে ফোনালাপের পুরো ঘটনা মোবাইল ফোনে রেকর্ড করে তার (রাসেল) সহযোগীদের কাছে ছড়িয়ে দেয়। পুরো রেকডিংটি কয়েকদিনের মধ্যে পুরো এলাকায় ভাইরাল হয়ে যায়।

 

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>