বরিশালে গণধর্ষণের শিকার কলেজ ছাত্রী

আগস্ট ০৬ ২০১৭, ২১:৪৪

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ চেতনানাশক খাইয়ে অজ্ঞান করে এক কলেজ ছাত্রীকে প্রেমিক ও তার বন্ধুদের বিরুদ্ধে গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ওই ছাত্রীকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় অভিযুক্তর মা-বাবাকে আটক করেছে পুলিশ।
পুলিশ ও এলাকাবাসীসূত্রে জানা গেছে, আগৈলঝাড়া উপজেলার গৈলা ইউনিয়নের কালুপাড়া গ্রামের বাসিন্দা বরিশাল মহিলা কলেজের অনার্স পড়ুয়া ওই ছাত্রীর সঙ্গে গৌরনদী উপজেলার খাঞ্জাপুর ইউনিয়নের বাকাই গ্রামের রাজ্জাক আকনের ছেলে রিফাত আকনের (২২) প্রেমের সম্পর্ক ছিল। এর সূত্র ধরে রিফাত বিয়ের কথা বলে ওই ছাত্রীকে শনিবার বিকেলে মাদারীপুরের মাইজপাড়ার গ্রামের একটি বাগানে বেড়াতে নিয়ে যায়। একপর্যায়ে ছাত্রীকে চেতনানাশক খাইয়ে অচেতন করে রিফাত আকন ও তার তিন

বন্ধু মিলে ধর্ষণ করেন। পরে ওই ছাত্রী গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে রিফাত ও তার বন্ধুরা মিলে ধর্ষিতাকে কালকিনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রেখে পালিয়ে যায়। পরে রিফাতের বাবা-মা ঘটনা জানতে ওই স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যান। এ সময় কালকিনি থানার পুলিশ তাদের আটক করে।
কালকিনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. একরামুল ইসলাম বলেন, হাসপাতালের বারান্দায় তাকে অচেতন অবস্থায় পেয়েছি। তাকে চেতনানাশক ওষুধ খাওয়ানো হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ওই শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের আলামত পাওয়া গেছে। তার প্রাথমিক চিকিৎসা চলছে। কালকিনি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কৃপাসিন্ধু বালা বলেন, কলেজছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় রিফাতের বাবা-মাকে আটক করা হয়েছে। ধর্ষিতা ছাত্রীর পরিবার অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>