বরিশালে স্বামীর পুরুষাঙ্গ কর্তন মামলায় স্ত্রীর ৫ বছর কারাদন্ড

মার্চ ২২ ২০১৭, ২১:২৪

স্টাফ রিপোর্টারঃবরিশালে স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে ফেলার মামলায় স্ত্রী লিপি বেগমকে ৫ বছরের সশ্রম কারাদন্ড ও ৫ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরো ৩ মাসের দন্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত। একই সাথে মামলার অপর দুই আসামী দন্ডপ্রাপ্তের ২ বোন যথাক্রমে নাজমা বেগম ও পপি বেগমকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়। বরিশাল চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মো. আলী হোসাইন গতকাল বুধবার বিকেলে আসামীদের অনুপস্থিতিতে এই রায় ঘোষনা করেন। দন্ড ও খালাসপ্রাপ্তরা ফরিদপুরের কোতয়ালী থানার কমলাপুর গ্রামের মোল্লা বাড়ির মৃত হাকিম মোল্লার মেয়ে। এদের মধ্যে লিপি বেগমকে ২০০৮ সালে সামাজিকভাবে বিয়ে করেন নগরীর মুসলিম গোরস্থান রোডের জোমাদ্দার ম্যানশেনের মেহেদী হাসান রবিন। আদালত সূত্র জানায়, বিয়ের ৩ বছর পর রবিন ও নাজমার দম্পত্তির ঔরসে একটি কন্যা সন্তানের জন্ম হয়। সৃস্টি নামে ওই সন্তান জন্মদানের পর লিপি উচ্ছৃংখল জীবন যাপন শুরু করেন। স্বামী এর প্রতিবাদ করলে লিপি ক্ষিপ্ত হয়। পরে বিষয়টি লিপির দুই বোনকে জানিয়েও কোন প্রতিকার পায়নি সে। দ্ইু

বোনকে জানানোয় উল্টো রবিনের উপর আরো ক্ষিপ্ত হয় লিপি। ২০১২ সালের ২৭ ডিসেম্বর রাতের খাবার শেষে মুসলিম গোরস্থান রোডের বাসায় রবিন, লিপি ও তাদের কন্যা সন্তান ঘুমাতে যায়। ওই রাত ২টার দিকে অপর দুই বোনের সহায়তায় স্বামীকে হত্যার উদ্দেশ্যে লিপি ধারালো অস্ত্র দিয়ে রবিনের পুরুষাঙ্গ কেটে ফেলে। ঘটনার পরপরই নাবালক সন্তান এবং অপর দুই বোন নিয়ে রাতেই বাসা থেকে পালিয়ে যায় লিপি। পরে রক্তাত্ব রবিনকে উদ্ধার করে তার ছোট ভাই ও মা শেরে-ই বাংলা মেডিকেলে ভর্তি করেন। উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকায় প্রেরন করেন চিকিৎসক। ঘটনায় ২দিন পর ২৯ মার্চ রবিনের ভাই মাইনুল ইসলাম বাদী হয়ে ৩ বোনকে আসামী করে কোতয়ালী মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ২০১৩ সালের ৩০ মার্চ লিপি এবং অপর দুই বোনকে অভিযুক্ত করে আদালতে এই মামলার অভিযোগপত্র দেন তদন্ত কর্মকর্তা কোতয়ালী মডেল থানার এসআই গোলাম কবির। আদালতে ১১ জনের সাক্ষ্য গ্রহন শেষে বিচারক ওই রায় ঘোষনা করেন।

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>