‘বস টু’ বিতর্ক: ছবির মাত্র ২০ ভাগ শিল্পী বাংলাদেশের

জুন ০৮ ২০১৭, ১৩:৩২

আবারো আলোচনায় যৌথ প্রযোজনার ছবি। নীতিমালা নিয়ে এখন পর্যন্ত অনেক কথা হলেও তেমন সোচ্চার দেখা যায়নি সংশ্লিষ্টদের। এখন পর্যন্ত নিয়মকানুনের ফাঁক পেরিয়ে বেশ দাপটের সাথে হলে চলেছে অনেক যৌথ প্রযোজনার চলচ্চিত্র। যদিও এ নিয়ে খণ্ড খণ্ড বেশকিছু প্রতিবাদ হলেও তেমন কোনো কাজ হয়নি। তাই এ নিয়ে সমালোচনাও চলেছে অনেকে। তবে অবশেষে সোচ্চার হলো সেন্সর বোর্ডের প্রিভিউ কমিটি।
রোজার ঈদে মুক্তি প্রতীক্ষিত চলচ্চিত্রগুলো মধ্যে দুটি যৌথ প্রযোজনার। একটি শাকিব খান অভিনীত ‘নবাব’, অন্যটি নূসরাত ফারিয়ার ‘বস টু’। ছবি দুটিতে শাকিবের বিপরীতে শুভশ্রী ও ফারিয়ার বিপরীতে অভিনয় করেছেন জিৎ। ফারিয়া-জিৎ জুটির ছবির গত রোজার ঈদে দর্শক দেখলেও শাকিবের সাথে শুভশ্রীর
রসায়নটা এই প্রথম।
ছবিগুলোর মধ্যে ‘বস টু’ এরইমধ্যে সেন্সর বোর্ডের প্রিভিউ কমিটি দেখেছে। এরপরই শুরু হয়েছে ছবিটি নিয়ে নানা বিতর্ক। প্রথম প্রিভিউ কমিটি জানায়, ‘বস টু’ প্রায় ৮০ ভাগ অভিনয়শিল্পী থেকে শুরু করে কলাকুশলী কলকাতার। যেখানে যৌথ প্রযোজনার নীতি অনুযায়ী দুই বাংলার সবকিছুই সমানভাগে থাকার কথা। কিন্তু সেই নিয়ম থেকে বের হয়ে ছবিটি নির্মিত হওয়ায় আটকে গেছে ছবিটির সেন্সর।
এ প্রসঙ্গে প্রিভিউ কমিটির সদস্য নাসিরুদ্দিন দিলু গণমাধ্যমে জানান, তারা ‘বস-টু’ ছবিটি দেখেছেন এবং তারা হতাশ। কারণ ছবির মাত্র ২০ ভাগ শিল্পী বাংলাদেশের। এই অসামঞ্জস্যতার বিষয়টি মন্ত্রণালয়ে জানানো হবে। এরপর সেখান থেকে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। এরপর আবারও এ বিষয়ে জানানো হবে।
Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>