বাকেরগঞ্জে ডাকাতি ঘটনায় ১৫ দিনেও মামলা হয়নি

জুন ১৫ ২০১৭, ২৩:৪৯

বাকেরগঞ্জ প্রতিনিধি: বাকেরগঞ্জে ডাকাতি ঘটনায় পুলিশ অফিসারের বরখাস্ত করা পর্যন্তই সীমাবদ্ধ রয়েছে। ঘটনার ১৫ দিন পেরিয়ে গেলেও এখনো কোন মামলা না হওয়ায় রহস্যেরে সৃষ্টি হয়েছে। গত ৩০ মে রাতে উপজেলার গারুড়িয়া ইউনিয়নের রবিপুর গ্রামের আজিজ হাওলাদারের পুত্র মোঃ হান্নান হাওলাদারের বাড়িতে ডাকাতি সংঘঠিত হয়। ওইদিন রাতে টহল ডিউটির দায়িত্বে ছিলেন এএসআই জাকারিয়াসহ কনস্টেবল মোঃ আলতাফ হোসেন। বাকেরগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ অজিজুর রহমান উক্ত ডাকাতির ঘটনা জেলা পুলিশ সুপার (এসপি) এস এম আক্তারুজ্জামানকে অবহিত করেন। সূত্র জানান, পরের দিনই ৩০ মে এএসআই জাকারিয়াকে সাময়িক বরখাস্ত করেন। এছাড়া ওসি তদন্ত মোঃ হারুন-অর-রশিদকে বদলী আদেশ দেয়া হয়। অফিসার ইনচার্জ অজিজুর রহমান বলেন, ওইদিন দুজন অফিসারের বিরুদ্ধে দায়িত্বে অবহেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। তার দাবি রাত ১টার আগেই এএসআই জাকারিয়া দায়িত্ব ফাঁকি দিয়ে এসেছে। রহস্যজনক ঘটনা হচ্ছে, দুই পুলিশ অফিসারের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিয়েই ঘটনা ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা চলছে। অনেকেই সন্দেহ-সংশয় প্রকাশ

করে প্রশ্ন তুলেছেন। ওই দিন থানায় ডিউটিরত অফিসার এসআই মিনহাজ উদ্দিন জানান ঘটনার দিন ৩০ মে রাত ১টা ৫৫মিনিটে এএসআই জাকারিয়ার সাথে তার ফোনে কথা হয়। ওই সময় জাকারিয়া রাতের টহল ডিউটিতে ছিলেন এবং ফোনে কথা বলার আগ মুহুর্ত পর্যন্ত জাকারিয়া থানায় ফিরে আসেননি বলেও তিনি দাবি করেন। এছাড়া ডাকাতি ঘটনার দিন জাকারিয়ার সাথে দায়িত্বরত ছিলেন কনস্টেবল মোঃ আলতাফ হোসেন (কং-৬১৩)। ওইদিন জাকারিয়ার সাথে দায়িত্ব পালনে কোনো গাফিলতি হয়নি বলে তিনি দাবি করেন। তবে ওসি বলছেন ভিন্ন কথা। তার দাবী অভিযুক্ত এসআই ওই দিন রাত একটার পূর্বেই বাসায় চলে যান। এস আই জাহিদ জানান, ডাকাতি ঘটনার পর পরই তিনি রাত ৩টার দিকে জাকারিয়াকে সাথে নিয়ে রবিপুর গ্রামের কয়েকটি সন্দেহজনক বাড়িতে ও স্থানে তল্লাশী চালিয়েছেন। ডাকাতি সংঘঠিত রবিপুর গ্রামের ইউপি সদস্য আলাউদ্দিন হাওলাদার জানান, ডাকাতি ঘটনার দিন এএসআই জাকারিয়া এবং তার সঙ্গীয় ফোর্স তাদের এলাকায় টহল ডিউটি পালন করেছে।

Facebook Comments

<a href=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/infra-add.jpg” target=”_blank” rel=”noopener”><img src=”http://barisallive24.com/wp-content/uploads/2017/05/Hoopers1.jpg” width=”331″ height=”270″ /></a>