বাকেরগঞ্জে আলোচিত মামুন হত্যা মামলায়,এক মাসেও আসামীদের গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ

আপডেট : March, 18, 2017, 10:09 pm

বাকেরগঞ্জ প্রতিনিধিঃ বাকেরগঞ্জে আলোচিত মামুন হত্যা মামলার আসামীদের এক মাসেও গ্রেফতার করতে পারেনি থানা পুলিশ। গত ২১ ফেব্রুয়ারী ভাষা দিবসে নিয়ামতি ইউনিয়নের কাফিলা গ্রামে ঘটে যাওয়া আবু জাফর খানের পুত্র ২২ বছরে ডিগ্রি পড়–য়া মামুন খান হত্যা বিহারীপুরের প্রত্যেকটি মানুষে হৃদয়ের স্পন্দন চোখকে অশ্র“ শিক্ত করে তুলেছে। তথ্য সূত্রে, এই মর্মান্তিক হত্যা কান্ড শুধু একটি প্রেম নিয়ে নয় ঘটনার পেছনে লুকিয়ে আছে বন্ধুদের ষড়যন্ত্র। কি করে পারে বন্ধু হয়ে বন্ধুর নিঃশ্বাসটুকু কেরে নিয়ে নিষ্ঠুর ভাবে হত্যা করে প্রেমিকার বাড়ি থেকে প্রেমিকার ওড়না চুরি করে এনে গলায় ফাঁস দিয়ে মামুনকে গাছের সাথে ঝুলিয়ে রাখতে। মামুনের পিতা-মাতার কান্না গোটা বিহারীপুরের মানুষ রাতে ঘুম কেরে নেয়। মূলত মামুনের হত্যার পেছনে ছিল একই গ্রামের মো: দেলোয়ার তালুকদারের পুত্র নাজমুল তালুকদার,মো: মহাতাব মোল্লার পুত্র করিম মোল্লা ও ইউনুস সাজ্জালের পুত্র আব্দুল রহিম সাজ্জাল এই তিন বন্ধুর পরিকল্পনা। মামলা সূত্রে, গত ২১ ফেব্র“য়ারী সকাল ৯ টায় মামুন ঢাকা থেকে নাজমুলের ফোনে বাড়িতে আসে না আসতেই মামুনের বন্ধুরা ফোনে মামুন কে কাফিলা ব্রীজে ডেকে নিয়ে যায়। সন্ধ্যা ঘনিয়ে

রাত হয়ে গেলেও মামুন বাড়িতে না আসায় তার মা পুস্প বেগম তার চাচীর ফোন দিয়ে মামুনকে বারবার ফোন দিলে মামুনের ফোন বন্ধ পায়। পরের দিন মামুনের মা-বোনেরা বিভিন্ন লোক মুখে শুনতে পায় তার ছেলে কাফিলা গ্রামস্থ মহিবুল মীরের ঘরের পশ্চিম পাশে আইয়ুব আলী মীরের বাগানে একটি চিকন পেচি গাব গাছের সাথে গলায় ওড়না দ্ধারা ফাঁস লাগানো অবস্থা ঝুলিতেছে। পরে বাকেরগঞ্জ থানায় সংবাদ দিলে ২২ ফেব্রুয়ারী মামুনের মা বাদি হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ ঘটনায় কাফিলা গ্রামের মো: মহিবুল মীরার কন্যা সাথি আক্তার ঝর্না (১৭) এবং ঝর্নার মা জাহানারা বেগম এ দু’জনকে গ্রেফতার করেন বাকেরগঞ্জ থানা পুলিশ। কিছুদিন পরে মামুনের মা পুস্প বেগম জানতে পারে তার ছেলে মামুনকে তার বন্ধুরা হত্যা করছে। এ ঘটনায় গতকাল অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মফিজুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে মামুনের পরিবারকে হত্যাকারীদের বিচার হবে বলে আশ্বাস প্রদান করেন। মামলা তদন্ত কর্মকর্তা এস আই আউয়াল জানান, হত্যা মামলার আসামীদের গ্রেফতারের অভিযান অব্যহত রয়েছে। এলাকাবাসী মামুন হত্যাকারীরা যেখানে থাকুক না কেন তাদেরকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্থির দাবী জানিয়েছেন।

Facebook Comments