দেশে এখন কোনো খাদ্য সংকট নেই: প্রধানমন্ত্রী

আপডেট : June, 19, 2017, 8:43 pm

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দু’দেশের পারস্পরিক স্বার্থে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক অঞ্চলগুলোতে মরক্কোর বিনিয়োগ কামনা করে বলেছেন, ‘আমরা শিল্পায়ন ও কর্মসংস্থানের জন্য সারাদেশে ১০০ অর্থনৈতিক অঞ্চল গড়ে তুলছি। মরক্কো এই অর্থনৈতিক অঞ্চলগুলোতে বিনিয়োগ করতে পারে। এতে উভয় দেশ লাভবান হবে।’
সোমবার দুপুরে প্রধানমন্ত্রীর জাতীয় সংসদ ভবন কার্যালয়ে বাংলাদেশে নিযুক্ত মরক্কোর নবনিযুক্ত রাষ্ট্রদূত মজিদ হালিম সৌজন্য সাক্ষাত্ করতে গেলে শেখ হাসিনা এ আহ্বান জানান। বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের ব্রিফিং করেন।
শেখ হাসিনা বলেন, ‘আমরা পারস্পরিক স্বার্থে আলোচনার মাধ্যমে সহযোগিতার খাতগুলো চিহ্নিত করতে পারি’। কৃষিখাতে বাংলাদেশের সাফল্যের কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের এই অভিজ্ঞতা মরক্কোর সঙ্গে বিনিময় করতে পারে। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বাংলাদেশের অর্থনীতি প্রধানত কৃষির উপর নির্ভর এবং
দেশের সব মানুষের জন্য খাদ্যের যোগান দেয়া খুবই কঠিন ছিল। আমরা গবেষণার মাধ্যমে খাদ্য উত্পাদন বাড়িয়েছি। বর্তমান ১৬ কোটি মানুষের খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত হয়েছে। দেশে এখন কোন খাদ্য সংকট নেই। বাংলাদেশ এখন খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ। শেখ হাসিনা বলেন, তাঁর লক্ষ্য হচ্ছে বাংলাদেশকে উন্নত ও সমৃদ্ধ দেশে পরিণত করা।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধুর ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত সোনার বাংলা গড়ার স্বপ্ন পুরণে আমরা কাজ করে যাচ্ছি। বর্তমান সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপের ফলশ্রুতিতে আমাদের জিডিপি ৭.২৪ শতাংশ এবং মাথাপিছু আয় ১৬০২ মার্কিন ডলারে উন্নীত হয়েছে। তিনি সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে তাঁর সরকারের জিরো টলারেন্স নীতির কথা পুনর্ব্যক্ত করেন। দেশে বিরাজমান সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির কথা তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, সকল ধর্মের মানুষ শান্তিপূর্ণভাবে তাদের ধর্ম পালন করছে।
Facebook Comments